শিরোনাম:
পাইকগাছা, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

SW News24
বুধবার ● ২৪ এপ্রিল ২০২৪
প্রথম পাতা » বিবিধ » উপকূল গবেষণায় লিডার্স কর্তৃক বৃত্তি প্রদান
প্রথম পাতা » বিবিধ » উপকূল গবেষণায় লিডার্স কর্তৃক বৃত্তি প্রদান
২৩০ বার পঠিত
বুধবার ● ২৪ এপ্রিল ২০২৪
Decrease Font Size Increase Font Size Email this Article Print Friendly Version

উপকূল গবেষণায় লিডার্স কর্তৃক বৃত্তি প্রদান

---

জলবায়ু পরিবর্তন বাংলাদেশের দক্ষিণ পশ্চিম অঞ্চলের মানুষের জীবন যাত্রা- খাদ্য নিরাপত্তা, অপুষ্টি, আয় কে ব্যাপকভাবে প্রভাবিত করেছে যা দক্ষিণ পশ্চিম অঞ্চলের মানুষের বেকারত্ব সৃষ্টি করেছে।

গবেষণা ভিত্তিক উন্নয়ন সংস্থা লিডার্স, গবেষণা এবং তথ্য প্রচারের মাধ্যমে জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব প্রশমনের চেষ্টা করে যাচ্ছে। যার মধ্যে অন্যতম, উপকূলীয় এলাকার স্থানীয় সমস্যা নিয়ে গবেষণা পরিচালনার জন্য গবেষকদের বৃত্তি প্রদান।

গবেষকগণ বৃত্তির সহায়তায় উপকূলের সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে গবেষণা করতে পারেন এবং জাতীয় ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে তুলে ধরতে লিডার্সকে সহায়তা করতে পারবেন।

এরই ধারাবাহিকতায়, গত ২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ তারিখে লিডার্স এর ক্লাইমেট এ্যান্ড এডাপটেশন নলেজ ম্যানেজমেন্ট সেন্টার গবেষকদের বৃত্তি প্রদান করেছে। বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন লিডার্স এর প্রধান হিসাবরক্ষক মো: রায়হান কবীর, প্রশাসনিক কর্মকর্তা জয়দেব জোদ্দার এবং জ্ঞান ও গবেষণা ব্যবস্থাপক ফারজানা ইসলাম। তারা উপকূলীয় সমস্যাসমূহের উপর গুরুত্বারোপ করেন এবং গবেষণার প্রাসঙ্গিকতা উল্লেখ করেন। গবেষকগণ তাদের গবেষণা কার্যক্রমের মাধ্যমে উপকূলীয় সংকট নিরসনে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখবেন বলে তারা আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

গবেষক দলে রয়েছেন খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মোহাম্মদ ইসমাইল এবং ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস এর মোহাম্মদ রায়হান কবীর শুভ্র। তারা স্থানীয় জনগণের উপর জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব যেমন জলবায়ু পরিবর্তনের অভিযোজন কৌশল, উপকূলে প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের শিক্ষা অর্জনের চ্যালেঞ্জ, এবং মুন্ডা সম্প্রদায়ের বৈবাহিক সম্পর্কের ওপর জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব নিয়ে কাজ করবেন। গবেষক জনাব মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান জানান, “উপকূলের মানুষ দীর্ঘদিন যাবৎ জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবের শিকার। তাদের জীবনযাত্রা বিভিন্নভাবে ব্যাহত হচ্ছে যেখানে তাদের কোনো হাত নেই। আমরা গবেষণা কাজের মাধ্যমে এরকম দুর্গম অঞ্চলের মানুষের জন্য কাজ করার সুযোগ পাচ্ছি যা তাদের অবস্থার উন্নয়নে সহায়ক হিসেবে কাজ করবে। এক্ষেত্রে লিডার্স এর ভূমিকা প্রশংনীয়।”





আর্কাইভ

পাঠকের মন্তব্য

(মতামতের জন্যে সম্পাদক দায়ী নয়।)